মাধ্যমিকে যে-কোনও ধরনের প্রশ্ন থেকেই ৪৫ নম্বরের উত্তর দেবে পরীক্ষার্থীরা



বি.বি নিউজ ৩৬৫ ডেস্ক: মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আগেই জানিয়েদিয়েছেন এবারের মাধ্যমিকের পরীক্ষার্থীরা পূর্ণমান ৯০-এর অর্ধেক অর্থাৎ ৪৫ নম্বরের পরীক্ষা দেবে। মোট ৯০ মিনিটের পরীক্ষা নেওয়া হবে। মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা মতোই প্রস্তুতি নিচ্ছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ।

এবারের মাধ্যমিক পরীক্ষায় যে-কোনও ধরনের প্রশ্ন থেকেই পরীক্ষার্থীরা এই ৪৫ নম্বরের উত্তর দেবে। মধ্য শিক্ষা পর্ষদ ৪৫ নম্বরের মধ্যে একজন পরীক্ষার্থী যত নম্বর পেয়েছে সেটাকে দ্বিগুণ করে তার সঙ্গে অন্তর্বর্তী মূল্যায়নের ১০ নম্বরে সে যা পেয়েছে, সেটা যােগ করে ১০০ নম্বরের নিরিখে মার্কশিট তৈরি করবে।

এখনও পর্যন্ত এই সিদ্ধান্তই নিয়েছে পর্ষদ। নতুন প্রশ্নে নয়, যে প্রশ্ন হয়ে রয়েছে। তাতেই পরীক্ষা হবে। জানা গেছে, আগষ্টের ৯ অথবা ১০ থেকে মাধ্যমিক পরীক্ষা শুরু হতে পারে।

এ নিয়ে সরকারি স্কুল শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সৌগত বসু বলেন, ‘যেহেতু নম্বর অর্ধেক হয়ে গেছে তাই নতুন প্রশ্নে পরীক্ষা নেওয়া হলেই ভাল হত। তা হলে পরীক্ষার্থীরা কোন ধরনের প্রশ্নের ক’টা করে উত্তর লিখবে তা যেন স্পষ্ট নির্দেশিকা জারি করে জানিয়ে দেয় পর্ষদ।’

কলেজিয়াম অফ অ্যাসিস্ট্যান্ট হেডমাস্টার্স অ্যান্ড অ্যাসিস্ট্যান্ট হেডমিস্ট্রেস-এর সম্পাদক সৌদীপ্ত দাস বলেন, ‘মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিকের লিখিত পরীক্ষার পূর্ণমান অর্ধেক হয়ে যাচ্ছে। বিকল্প প্রশ্নের সংখ্যা বৃদ্ধি ঘটছে বলেই জানা যাচ্ছে। তাই অতি দ্রুত ছাত্রস্বার্থে প্রশ্নপত্রের নতুন কাঠামাে ও নম্বর বিন্যাস জানালে ভালো হয়।’

অল পোস্ট গ্ৰ্যজুয়েট টিচার্স ওয়েলফেয়ার এ্যাসোসিয়েশন সংগঠনের সহ সভাপতি বৈশাখী সাহা বলেন, “সংশোধিত পরীক্ষার সময় অনুসারে বিষয় ভিত্তিক সিলেবাস ও প্রশ্ন কাঠামো সহ বিস্তারিত পরীক্ষা পদ্ধতি অবিলম্বে নোটিফিকেশন মাধ্যমে প্রকাশ করুক পর্ষদ ও সংসদ।”

error: