মানবিক মুখ সলমন খানের! ৫ হাজার করোনা যোদ্ধার খাবারের বন্দোবস্ত করলেন ভাইজান



নিজস্ব প্রতিবেদন, বি.বি নিউজ বিনোদন বিভাগ:গোটা ভারতজুড়ে সন্ত্রাসের প্রবল জাল বিস্তার করেছে করোনা ভাইরাস। এই ভাইরাসের প্রকোপে পড়ে দিনের পর দিন প্রাণ’হানি ঘটছে অসংখ্য মানুষের। ভারতের অবস্থা দিনের পর দিন আরো শোচনীয় হয়ে চলেছে। দিন দিন বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। সেই সাথে আরও বিভীষিকাময় পরিবেশ বিরাজ করছে অক্সিজেনের অভাবকে কেন্দ্র করে। ভারতের বিভিন্ন সরকারি এবং বেসরকারি হাসপাতালে দেখা দিয়েছে অক্সিজেনের ঘাটতি।‌

এই পরিস্থিতিতে সাধারণ মানুষের জীবন হয়ে উঠেছে দুর্বিষহ। মহারাষ্ট্র এবং দিল্লির বুকে শুরু হয়ে গিয়েছে লকডাউন। দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল দেশের শিল্পপতিদের কাছে চিঠি লিখে আবেদন জানিয়েছেন অক্সিজেন দেওয়ার জন্য। ভারতের অন্যতম বন্ধুরাষ্ট্র সৌদি আরব ভারতকে অক্সিজেন দিয়ে সাহায্য করবে বলে অঙ্গীকার করেছে। আদানি শিপিং কোম্পানি মারফৎ ৫ হাজার অক্সিজেন সিলিন্ডার তারা পাঠাচ্ছে জাহাজে করে।

এছাড়াও পিএম কেয়ার্স ফান্ড থেকে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে অনেকগুলি অক্সিজেন জেনারেটর প্ল্যান্ট বসানোর পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে।এই আবহে করোনা যোদ্ধাদের সাহায্যার্থে এগিয়ে এলেন সলমন খান। সলমন শিব সেনার সঙ্গে একটি মিলিত জনকল্যাণমূলক প্রচেষ্টা চালু করেছেন। পাঁচ হাজার করোনা যোদ্ধাদের খাবারের দ্বায়িত্ব তিনি কাঁধে তুলে নিয়েছেন। শিবসেনার যুব শাখার সাথে সম্মিলিতভাবে তিনি খাবারের প্যাকেট পৌঁছে দিচ্ছেন চিকিৎসক থেকে শুরু করে স্বাস্থ্য কর্মী সহ প্রায় ৫ হাজার করোনা যোদ্ধাদের হাতে।

ভাইজানস কিচেন থেকে সকলের হাতে তুলে দেওয়া হচ্ছে খাবার এবং জলের বোতল। এমনকি জানা গিয়েছে সেই সমস্ত খাবারের মান পর্যবেক্ষণ করছেন সলমন নিজেই। আপাতত জানা গিয়েছে বান্দ্রা থেকে বিকেসি এবং বাইকুল্লা থেকে জুহু পর্যন্ত ৫ হাজার মানুষের কাছে এই খাবার পৌঁছে দেওয়া হবে।

সলমনের স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা বিইং হিউম্যান বরাবরই দুঃস্থ মানুষদের জন্য বিভিন্ন জনকল্যাণ মূলক কাজ করে থাকে। গতবছর লকডাউন এর ভয়াবহ আবহে পরিযায়ী শ্রমিক’দের খাবার পৌঁছে দিয়েছিল সলমনের বিইং হিউম্যান সংস্থা। এবার শিবসেনার সাথে সম্মিলিতভাবে করোনা যোদ্ধাদের পেট ভরানোর দায়িত্ব নিয়ে নিলেন মানবিক সলমন।

error: